দুর্গাপুর দাখিল মাদ্রাসার সুপারের বিরুদ্ধে নিয়ম বহির্ভূত অর্থ আদায়ের অভিযোগ


দৈনিক প্রতিদিনের অপরাধ প্রকাশের সময় : এপ্রিল ১১, ২০২২, ৬:৪৩ অপরাহ্ন /
দুর্গাপুর দাখিল মাদ্রাসার সুপারের বিরুদ্ধে নিয়ম বহির্ভূত অর্থ আদায়ের অভিযোগ

অপরাধ ডেস্কঃ

কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার দুর্গাপুর দাখিল মাদ্রাসার সুপারের বিরুদ্ধে শিক্ষার্থীদের নিকট থেকে নিয়ম বহির্ভূত অর্থ আদায়ের অভিযোগ পাওয়া গেছে। সোমবার অভিভাবকরা মাদ্রাসায় অষ্টম শ্রেণি পাশের পর অন্যত্র ভর্তি করার জন্য ছারপত্র আনতে গেলে মাদ্রাসার সুপার তাদের নিকট পনের শত টাকা দাবী করেন বলা জানা যায়।

অভিভাবক রবিন হোসেন ও আমিরুল ইসলাম জানান, সকালে শিক্ষার্থীরা মাদ্রাসায় ছারপত্র নিতে আসলে মাদ্রাসা থেকে তাদের কাছে পনের শত টাকা চাওয়া হয়। বিষয়টি শিক্ষার্থীরা বাড়িতে গিয়ে জানালে তারা মাদ্রাসার সুপারের সাথে কথা বলেন। এসময় মাদ্রাসার সুপারিন্টেন্ডেন্ট মাও. মো. আসলাম উদ্দিন তাদের নিকট ও একই কথা বলেন। অভিভাবকরা আরও জানান অন্যান্য দাখিল মাদ্রাসায় ৩০০ টাকা ক্ষেত্র বিশেষে ৫০০ নিচ্ছে ছারপত্রের জন্য কিন্তু দুর্গাপুর দাখিল মাদ্রাসার সুপার নিয়ম বহির্ভূত ভাবে পনের শত টাকা দাবী করছেন।

এ বিষয়ে মাদ্রাসার সুপার আসলাম উদ্দিন জানান, তাদের মাদ্রাসায় অবৈতনিক ভাবে শিক্ষার্থীরা পড়ালেখা করে। যেহেতু স্কুল ছেড়ে চলে যাচ্ছে সেহেতু তাদের সমস্ত দেনা পাওনা পরিশোধের জন্য তিন বছরের সেশন চার্জ বাবদ পনের শত টাকা দাবী করা হয়েছে।

এ বিষয়ে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আব্দুর রশিদ জানান, যেহেতু মাদ্রাসায় শিক্ষার্থীরা অবৈতনিক পড়ালেখা করে সেহেতু তাদের ছারপত্র দেবার সময় টাকা দাবী করার কোন সুযোগ নেই। খোঁজ খবর নিয়ে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বিতান কুমার মন্ডল জানান, নিয়ম বহির্ভূত ভাবে শিক্ষার্থীদের নিকট থেকে অর্থ আদায় করা হলে কোন অভিভাবক যদি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর দরখাস্ত দেয়। সেক্ষেত্রে ওই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।